এলইউ সোশ্যাল সার্ভিসেস ক্লাবের আয়োজনে পিঠা-পুলি উৎসব পালিত

এলইউ প্রতিনিধি :: বাঙ্গালী জাতির ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির অবিচ্ছেদ্য উপাদান পিঠা পুলি উৎসব। আর বারো মাসে তেরো পার্বণের এই ধারাবাহিকতায় সিলেটের লিডিং ইউনিভার্সিটিতে এলইউ সোশ্যাল সার্ভিসেস ক্লাবের আয়োজনে পালিত হলো পিঠা-পুলি উৎসব ১৪২৩।

সোমবার সকাল ১০ ঘটিকায় সুরমা টাওয়ার ক্যাম্পাসের হল রুমে ক্লাবের অর্গানাইজিং সেক্রেটারি আসিফ লাবিবের সঞ্চালনায় এবং ক্লাব প্রেসিডেন্ট ত্রিদিব দাসের পরিচালনায় উৎসবটি শুরু হয়।

প্রধান অতিথি হিসেবে লিডিং ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ড. মোঃ কামরুজ্জামান চৌধুরী এসময় পিঠা পুলি উৎসব ১৪২৩ উদ্বোধন করেন এবং উৎসবের নানা স্টল ঘুরে দেখেন।

এছাড়া ক্লাব উপদেষ্টা ও ইংরেজী বিভাগের সহকারী অধ্যাপক রূম্পা শারমিন উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর ড. মোঃ  কামরুজ্জামান চৌধুরী বলেন, লিডিং ইউনিভার্সিটি সব সময় ভিন্নধর্মী আয়োজনকে স্বাগত জানায়। এরুপ পিঠা পুলি উৎসব আয়োজন আমাদের বাঙ্গালী জাতির ঐতিহ্য এবং সংস্কৃতিকে বহন করে। তিনি এসময় এলইউ  সোশ্যাল সার্ভিসেস ক্লাবের ভূয়সী প্রশংসা করেন এবং সুদূর ভবিষ্যতে এরুপ আয়োজনে সাহায্য প্রদানে প্রতিশ্রুতি প্রদান করেন।

উৎসবে ৫টি ক্যাটাগরিকে সামনে রেখে বেস্ট স্টল নির্বাচন করা হয় যাতে যৌথ ভাবে লাবিবা এবং তার দল ও শাকের এবং তার দল প্রথম স্থান অর্জন করে।

সেরা স্টল নির্বাচনে বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ক্লাব উপদেষ্টা রূম্পা শারমিন, শিক্ষক আনোয়ার আহমেদ আরিফ এবং শিক্ষিকা মানফাত জেবিন হক।

বিকেল ৩.৩০ ঘটিকায় ক্লাব প্রেসিডেন্ট ত্রিদিব দাস ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপনের মধ্য দিয়ে উৎসবের সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

উল্লেখ্য, লিডিং ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরদের উপস্থিতিতে উৎসবটি প্রাণবন্ত হয়ে উঠেছিল।